বুধবার - মে ২২ - ২০২৪

অর্থের সদ্ব্যবহার নিয়ে আশাবাদী শিক্ষামন্ত্রী

কোভিড ১৯ মহামারির কারণে দুই বছরের শিক্ষায় যে বিঘ্ন তা কাটিয়ে উঠতে শিক্ষার্থীপ্রতি অভিভাবকদের ২০০ অথবা ২৫০ ডলার প্রদানের ঘোষণা দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী

স্কুলে শিক্ষা ক্ষতি পুষিয়ে নিতে অভিভাকদের প্রাদেশিক সরকারের দেওয়া অর্থের সদ্ব্যবহার হবে বলে বাবা-মায়েদের ওপর আস্থাশীল শিক্ষামন্ত্রী স্টিফেন লেচি। কোভিড-১৯ মহামারির কারণে দুই বছরের শিক্ষায় যে বিঘ্ন তা কাটিয়ে উঠতে শিক্ষার্থীপ্রতি অভিভাবকদের ২০০ অথবা ২৫০ ডলার প্রদানের ঘোষণা দিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী।

কিন্ডারগার্টেন থেকে ১৮ বছর বয়সী শিশুদের জন্য ২০০ ডলার চেয়ে আবেদন করতে পারবেন বাবা-মায়েরা। ২১ বছর বয়স পর্যন্ত স্কুলগামী সেব শিশুর বিশেষ শিক্ষার প্রয়োজন রয়েছে তাদের ক্ষেত্রে ২৫০ ডলারের জন্য আবেদন করা যাবে।

- Advertisement -

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিশুদের শিক্ষা জোরদার করতে এ অর্থের সর্বোত্তম ব্যবহার কীভাবে করতে হবে বাবা-মায়েরা তা ভালোই জানেন। এই অর্থের ব্যয়ের ব্যাপারে বাবা-মায়ের ওপর আমার আস্থা রয়েছে। ভালো কাজেই তারা এ অর্থ ব্যবহার করবেন। শিশুদের পাঠ্যবই, প্রযুক্তি ও স্কলপরবর্তী প্রোগ্রামে এ অর্থ তারা বিনিয়োগ করবেন।

বাবা-মায়েরা এই অর্থের জন্য অনলাইনে আবেদন করতে পারবেন এবং দুই থেকে তিন সপ্তাহের মধ্যে তা সরাসরি তাদের অ্যাকাউন্টে চলে যাবে। ২০২৩ সালের ৩১ মার্চ পর্যন্ত এ অর্থের জন্য আবেদন করা যাবে। ৩৬ কোটি ৫০ ডলারের যে পরিকল্পনা এই অর্থ তারই অংশ। গত আগস্টে থ্রন স্পিচে এই ঘোষণা দিয়েছিল সরকার। যদিও এই থোক বরাদ্দ কীভাবে বিতরণ করা হবে তা ছিল অস্পষ্ট।

ফোর্ড সরকারের কাছ থেকে এবারই যে অভিভাবকরা অর্থ পাচ্ছেন তেমনটা নয়। গত বছর বাবা-মায়েরা শূন্য থেকে ১২ গ্রেডের শিক্ষার্থীপ্রতি ৪০০ ডলার করে পেয়েছেন। তবে যাদের বয়স ২১ বছরের নিচে এবং বিশেষ শিক্ষার প্রয়োজন তাদের জন্য বাবা-মায়েরা পেয়েছেন ৫০০ ডলার করে।

This article was written by Rezaul Haque as part of the LJI

 

 

- Advertisement -

Read More

Recent