বুধবার - মে ২২ - ২০২৪

নিষেধাজ্ঞার বাইরে আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীরা

আন্তর্জাতিক যেসব শিক্ষার্থী গত পাঁচ বছরে কানাডায় তাদের খরচ নিজেরাই সংস্থান করেছেন তাদেরকে এ নিষেধাজ্ঞা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হচ্ছে পাঁচ লাখ টাকা পর্যন্ত বাড়ি কিনতে পারবে তারা

অনাবাসীদের ওপর কানাডায় বাড়ি কেনায় বিধিনিষেধ কার্যকরের কয়েকদিন দিন দীর্ঘদিন বসবাসের পরিকল্পনা আছে এমন অনেক বিদেশি কর্মী ও আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থীদের এ থেকে অব্যাহতি ঘোষণা করেছে ফেডারেল সরকার।

১ জানুয়ারি থেকে আগামী দুই বছরের জন্য বিদেশিদের জন্য কানাডায় বাড়ি ক্রয়ে নিষেধাজ্ঞা বজায় থাকবে। এপ্রিলের বাজেটের অংশ হিসেবে ফেডারেল সরকার এই ঘোষণা দিয়েছে। তাতে বলা হয়েছে, এর ফলে কানাডিয়ানদের সাশ্রয়ে বাড়ি প্রাপ্তির সুযোগ বাড়বে।

- Advertisement -

তবে কারা এ নিষেধাজ্ঞার আওতায় পড়বে এবং কারা এর বাইরে থাকবে তা প্রকাশ করা হয়েছে নিষেধাজ্ঞা কার্যকরের মাত্র ১১ দিন আগে বুধবার। আন্তর্জাতিক যেসব শিক্ষার্থী গত পাঁচ বছরে কানাডায় তাদের খরচ নিজেরাই সংস্থান করেছেন তাদেরকে এ নিষেধাজ্ঞা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হচ্ছে। পাঁচ লাখ টাকা পর্যন্ত বাড়ি কিনতে পারবে তারা।

বিদেশি কর্মীদের মধ্যে যারা গত চার বছরের মধ্যে অন্তত তিন বছর ধরে আয়কর বিবরণী দাখিল করছেন তারাও এ নিষেধাজ্ঞার বাইরে থাকবেন। পাশাপাশি কূটনীতিক, কনসুলার স্টাফ এবং কানাডায় বসবাসকারী আন্তর্জাতিক সংস্থার সদস্যরাও এই নিষেধাজ্ঞার আওতার বাইরে থাকবেন। এছাড়া সাময়িকভাবে বসবাসের অনুমতিপ্রাপ্ত বিদেশি নাগরিক, সহিংসতা এড়াতে পালিয়ে আসা ব্যক্তি ও শরনার্থীরাও এর আওতায় পড়বে না।

তিনটি বা তার বেশি ইউনিট রয়েছে এমন আবাসিক ভবন, বিনোদনের উদ্দেশে ব্যবহৃত ভবন যেমন কটেজ, কেবিন ও অন্যান্য অবকাশ যাপনের বাড়িও এই নিষেধাজ্ঞার আওতামুক্ত থাকবে। তবে বিদেশি প্রতিষ্ঠান যেমন করপোরেশন, বিদেশি নিয়ন্ত্রিত কানাডিয়ান প্রতিষ্ঠান নিষেধাজ্ঞা চলাকালে কানাডায় কোনো বাড়ি কিনতে পারবে না।

কানাডা মর্টগেজ অ্যান্ড হাউজিং করপোরেশন (সিএমএইচসি) জানিয়েছে, যেসব বিদেশি কর্মী ও আন্তর্জাতিক শিক্ষার্থী বর্ধিত সময়ের জন্য কানাডায় বসবাস করছেন এবং স্থায়ী বসবাসের উদ্দেশে কাজ করছেন তারা বাড়ি ক্রয়ে নিষেধাজ্ঞার আওতামুক্ত থাকবেন।

নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে কেউ বাড়ি কিনলে এবং কেউ তাতে জেনেশুনে সহায়তা করলে সর্বোচ্চ ১০ হাজার ডলার জরিমানার মুখে পড়তে হতে পারে। সেই সঙ্গে ওই বাড়ি বিক্রি করে দেওয়ার ক্ষমতা আদালতের রয়েছে।
ঠিক কতজন ব্যক্তি এই নিষেধাজ্ঞা থেকে অব্যাহতি পাচ্ছে সে ব্যাপারে জানতে চাইলে তাৎক্ষণিক কোনো মন্তব্য করেনি সংস্থাটি।

This article was written by Rezaul Haque as part of the LJI

- Advertisement -

Read More

Recent