রবিবার - জুলাই ১৪ - ২০২৪

টরেন্টোতে মহান একুশে উদযাপনে কমিটি

মহান একুশ ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস আসন্ন। তাই একুশের প্রথম প্রহরের নিরাপত্তা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, শহীদ মিনারের বেদীতে ফুল দেওয়ার শৃঙ্খলা এবং প্রচারসহ সার্বিক পরিস্থিতি নিয়ে গত রবিবার ৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, রাতে ডেনফোর্থের রেড হট তন্দুরি রেস্টুরেন্টে সর্বজনীন একুশ ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন কমিটির এক জরুরী সভা অনুষ্ঠিত হয়।

- Advertisement -

উক্ত সভায় সভাপতিত্ব করেন ইন্জিনিয়ার রেজাউর রহমান এবং সভা পরিচালনা করেন মাহবুব চৌধুরী রনি ।

সভায় ইন্জিনিয়ার রেজাউর রহমানকে আহবায়ক, একে আজাদকে যুগ্ম আহবায়ক এবং ফায়েজুল করিমকে সদস্য সচিব করে একটি শক্তিশালী উদযাপন কমিটি গঠন করা হয়েছে। মূল কমিটি ছাড়াও ৫২ সদস্যের উপদেষ্টা কমিটি ও ২০১ সদস্যের কাযকরী কমিটি গঠন করা হয়। পাশাপাশি এসব কমিটিকে সহায়তা দেওয়ার জন্য কয়েকটি উপকমিটি গঠন করা হয়েছে।

সভায় আসন্ন একুশ উদযাপনের সম্ভাব্য অবস্থা ও পরিস্থিতি নিয়ে উপস্থিত ব্যক্তিরা বিস্তারিত আলোচনা করেন। বক্তারা সভায় একুশ উদযাপন সংক্রান্ত বিষয়ে সিদ্ধান্ত গ্রহনের বিষয়ে একমত হন। বলেন, একুশ মানে মাথানত না করা। একুশ আমাদের অহংকার এবং একটি চেতনার নাম। তাই এই বিশেষ দিনে সবাইকে হাতে হাত এবং কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে একুশ উদযাপনের প্রস্তুতি গ্রহণ করতে হবে। আমাদের মনে রাখতে হবে আটলান্টিকের পাড়ে বসে এবং তীব্র শীত উপেক্ষা করে বাংলায় জয়গান করতে পারি ২১ শে ফেব্রুয়ারির বিশেষ দিনের জন্যই।

সভায় মোহাম্মদ রেজাউর রহমান,রেশাদ চৌধুরী, আহাদ খন্দকার, সাদ চৌধুরী, এ কে আজাদ , ফায়েজুল করিম, নওশের আলী, আহমেদ হোসেন, সুমন সাঈয়েদ, মাহবুব চৌধুরী রনি , মাসুদ আলি লিটন,

মকবুল হোসেন মনজু, ড. মো. হানিফ উদ্দিন , সৈয়দ আমিনুল ইসলাম, রিমন ইসলাম, কামরান করীম , বেলায়াত চৌধুরী রিপন, আবু জহীর সকীব, বাবলু চৌধুরী, আল মামুন, কামাল সরকার, সিরাজ আহমেদ, মো: সাকিব হোসেন, মো: সাহিদুর রহমান, জুমেল চৌধুরী ও দীন ইসলামসহ অনেকেই উপস্থিত ছিলেন। সভায় উপস্থিত সকলেই তাদের মূল্যবান মতামত ব্যক্ত করেন।

- Advertisement -

Read More

Recent