মঙ্গলবার - মে ২১ - ২০২৪

অচিহ্নিত কবর অনুসন্ধানে বাধা দিচ্ছেন কতিপয় জমিমালিক

আদিবাসী সম্পর্ক বিষয়ক মন্ত্রী মার্ক মিলার সাংবাদিকদের বলেন সাবেক আবাসিক স্কুলের অনেকগুলোই প্রাদেশিক ক্রাউন ল্যান্ডে অবস্থিত এবং এগুলো কারা নিয়ন্ত্রণ করবে তা নিয়ে অনেক ধরনের জটিলতা রয়েছে কতিপয় জমিমালিক কমিউনিটিকে সাহায্য করার আগ্রহ দেখালেও অন্যরা তাদের জমি ছেড়ে দিতে রাজি নয়

অচিহ্নিত কবর অনুসন্ধানে ব্যক্তিগত কিছু জমির মালিক আবাসিক স্কুলি ব্যবস্থা থেকে বেঁচে ফেরা ব্যক্তিদের বাধা দিচ্ছেন। তবে সম্ভাব্য কবরস্থানগুলো সংরক্ষণে অটোয়া নতুন আইন আনছে বলে একজন ফেডারেল মন্ত্রী জানিয়েছেন।

কীভাবে এ ধরনের স্থান ব্যবস্থাপনা করা যেতে পারে সে ব্যাপারে প্রয়োজনীয় পরামর্শ দিতে কিম্বারলি মারেকে নিয়োগ দিয়েছে প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর সরকার। তার ভূমিকা ও আদিবাসীদের কাছ থেকে যেসব উদ্বেগ তিনি শুনেছেন সে ব্যাপারে অবগত করতে গত মঙ্গলবার সেনেটের শুনানিতে হাজির হন তিনি।

- Advertisement -

কিম্বারলি মারে মিডিয়া কে বলেন, জমিতে আমাদের প্রবেশাধিকার প্রয়োজন। কীভাবে কিছু কাজে গতি আনা যায় তা ভেবে অনেক রাত আমার নির্ঘুম কেটেছে। সম্ভাব্য কবরস্থঅনগুলো সংরক্ষণে বর্তমানে কোনো ফেডারেল আইন নেই। আবাসিক স্কুলগুলো বন্ধ হয়ে যাওয়ার পর জমিগুলো আর ফার্স্ট নেশন বা অন্য আদিবাসী গোষ্ঠীকে ফেরত দেওয়া হয়নি। যদিও তারাই এই জমির প্রকৃত মালিক।

অন্য এক অনুষ্ঠানে আদিবাসী সম্পর্ক বিষয়ক মন্ত্রী মার্ক মিলার সাংবাদিকদের বলেন, সাবেক আবাসিক স্কুলের অনেকগুলোই প্রাদেশিক ক্রাউন ল্যান্ডে অবস্থিত এবং এগুলো কারা নিয়ন্ত্রণ করবে তা নিয়ে অনেক ধরনের জটিলতা রয়েছে। কতিপয় জমিমালিক কমিউনিটিকে সাহায্য করার আগ্রহ দেখালেও অন্যরা তাদের জমি ছেড়ে দিতে রাজি নয়। জমি ছেড়ে দেওয়ার কথা তুললে অনেক বেশি দাম হাঁকছে তারা। সরকার এ ধরনের স্থানগুলো সরক্ষণে আইন পস্তাব করতে যাচ্ছে এব এ বাপারে তারা মারের কাযালয়ের অনুমোদনের অপেক্ষায় আছে।

ট্রুথ অ্যান্ড রিকনসিলিয়েশন কমিশন অব কানাডার চূড়ান্ত পতিবেদনে বলা হয়েছে, সরকারের অর্থায়নে চার্চ পরিচালিত আবাসিক স্কুলগুলোতে দেড় লাখের বেশি ফার্স্ট নেশন, মেটিস ও ইনুইট শিশুদের জোরপূর্বক ভর্তি করা হয়েছিল। এর মধে ৬ হাজার শিশুর মৃত্যু হয়েছে। ন্যাশনাল ট্রুথ অ্যান্ড রিকনসিলিয়েশন মৃত ৪ হাজার শিশুর তথ্য সংরক্ষণ করেছে। যদিও সংখ্যাটি আরও অনেক বেশি বলে মনে করেন বিশেষজ্ঞরা।

This article was written by Rezaul Haque as part of the LJI

- Advertisement -

Read More

Recent