রবিবার - জুলাই ১৪ - ২০২৪

অবসরে যাওয়ার পরিকল্পনায় প্রভাব ফেলছে মূল্যস্ফীতি

হুপের সমীক্ষায় দেখা যায় দীর্ঘস্থায়ী মূল্যস্ফীতি ও সুদের হার বৃদ্ধির কারণে সব বয়সী কানাডিয়ানরা অবসরের জন্য সঞ্চয়ে হিমশিম খাচ্ছেন বিশেষ করে বয়স্করা যারা অবসরের কথা ভাবছেন

কানাডিয়ানরা অবসরকালীন সঞ্চয়ে হিমশিম খাচ্ছেন। মূল্যস্ফীতি ও উচ্চ সুদের হারের মধ্যে অনেকেই জীবনের পরবর্তী পর্ব পিছিয়ে দেওয়ার পরিকল্পনা করছেন। হেলথকেয়ার অব অন্টারিও পেনশন প্ল্যানের (হুপ) নতুন এক সমীক্ষায় এমনটাই উঠে এসেছে।

হুপের সমীক্ষায় দেখা যায়, দীর্ঘস্থায়ী মূল্যস্ফীতি ও সুদের হার বৃদ্ধির কারণে সব বয়সী কানাডিয়ানরা অবসরের জন্য সঞ্চয়ে হিমশিম খাচ্ছেন। বিশেষ করে বয়স্করা, যারা অবসরের কথা ভাবছেন।

- Advertisement -

সাম্প্রতিক মাসগুলোতে মূল্যস্ফীতির হার কমে আসছে। এপ্রিলে এই হার ৪ দশমিক ৪ শতাংশ থাকলেও তা কেন্দ্রীয় ব্যাংকের ২ শতাংশের যে লক্ষ্য তার দ্বিগুন। ব্যাংক অব কানাডা গত সপ্তাহে নীতিনির্ধারণী সুদের হার আরেক দফা বাড়িয়ে ৪ দশমিক ৭৫ শতাংশে উন্নীত করেছে। মূল্যস্ফীতির ঝুঁকির কথা বলে সুদের হার বাড়িয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

হুপ এবং অ্যাবাকাস ডেটার সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ৪৪ শতাংশ চাকরিতে থাকা কানাডিয়ানের বার্ষিক সঞ্চয় ৫ হাজার ডলারের কম। তাদের সবার বয়সই ৫৫ থেকে ৬৪ বছরের মধ্যে। এই বয়সশ্রেণির প্রতি পাঁচজনের মধ্যে একজন বলেছেন, সঞ্চয় করার মতো কিছু অবশিষ্ট থাকছে না তাদের।

বয়স্ক কানাডিয়ানদের ছবিটা আরও করুণ। সমীক্ষায় অংশ নেওয়া ৫৫ থেকে ৬৪ বছর বয়সী অর্ধেকের বেমি কানাডিয়ান বলেছেন, মূল্যস্ফীতি বাড়তে থাকলে তাদেরকে অবসরের সময়সীমা পিছিয়ে দিতে হবে।

সমীক্ষায় অংশগ্রহণকারী ৪৪ শতাংশ বলেছেন, গত বছর অবসরের জন্য কোনো অর্থ সঞ্চয় করতে পারেননি তারা। আগের বছর এই সংখ্যাটি ছিল ৬ শতাংশ কম।

ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছে ১৮ থেকে ৩৪ বছর বয়সীরাও। সমীক্ষায় অংশ নেওয়া এই বয়সশ্রেণির অর্ধেকই বলেছেন, তাদের অবসরের জন্য সঞ্চয় ও ঋণ পরিশোধের সক্ষমতায় প্রভাব ফেলছে উচ্চ সুদের হার। জীবনযাত্রার ব্যয় বেড়ে যাওয়া সত্ত্বেও সমীক্ষায় অংম নেওয়া প্রায় ৭০ শতাংশ কানাডিয়ান কম বেতনের চাকরি মেনে নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন।

This article was written by Rezaul Haque as part of the LJI

- Advertisement -

Read More

Recent