শনিবার - মার্চ ২ - ২০২৪

শাবনূরের পরিবর্তে মৌসুমী

লাক্স-এর বিজ্ঞাপনে এর আগে টিভির জনপ্রিয় নায়িকা বা মডেল অংশগ্রহণ করলেও চলচ্চিত্রের হালের নাম করা চিত্রনায়িকাদের দেখা যায়নি। মৌসুমী এক্ষেত্রে লাক্স-এর সর্বশেষ সংযোজন। তবে লাক্সের এই বিজ্ঞাপনের জন্য বিজ্ঞাপন সংস্থার প্রথম পছন্দ ছিল চিত্র নায়িকা শাবনূর। তার সঙ্গে বিজ্ঞাপন সংস্থা প্রাথমিকভাবে যোগাযোগ করেন। কিন্তু প্রতিষ্ঠানটির সঙ্গে শাবনূরের বনিবনা এবং শিডিউল অ্যাডজাস্টমেন্ট ঠিকমতো না হওয়ার ফলে বিজ্ঞাপনটি ফিরিয়ে দেয়। পণ্য প্রতিষ্ঠানটি শাবনূরকে না পাওয়ার পর মৌসুমীর দ্বারস্থ হয়। এ সময় চলচ্চিত্রের নায়িকা মৌসুমীর পাশাপাশি টিভি নায়িকা বিপাশাকেও লাক্স-এর আরেকটি রঙের জন্য কাস্ট করা হয়। যেটা অস্ট্রেলিয়াতে শুট করা হয়। ফলে বিপাশা হায়াত ও মৌসুমী একসাথে অস্ট্রেলিয়ার ব্রিজবেনে যান। এ বছর এই উপমহাদেশের ৪টি দেশ থেকে ৮জন তারকাকে নিয়ে ৮টি বিজ্ঞাপন তৈরি হয়। যেখানে ভারত থেকে নেয়া হয়েছিল জুহি চাওলা ও রাবিনা ট্যান্ডনকে। মূলত এজন্যই এই ৮জন তারকা অস্ট্রেলিয়াতে গিয়ে একত্রিত হন বিজ্ঞাপনগুলোর নির্মাতার সাথে।

- Advertisement -

অথচ এটাকে নিয়ে উল্লেখিত নায়িকার ভক্তরা মিথ্যাচার করে  আসছেন বছরের পর বছর। তারা বলে থাকেন, তিনি অস্ট্রেলিয়াতে যান লাক্স-এর মডেল হিসেবে পুরস্কার নেয়ার জন্য! যেটা উপমহাদেশের কেউই পায়নি! এমনকি বলে থাকেন, তিনি লাক্স-এর ব্র‍্যান্ড অ্যাম্বাসেডর ছিলেন। অথচ লাক্স-এর জন্য কখনোই কাউকে ব্র‍্যান্ড অ্যাম্বাসেডর করা হয়না। যেখানে একেক রঙের জন্য একেক তারকাদের মডেল হিসেবে নেয়া হত সেখানে নির্দিষ্ট একজন কিভাবে ব্র‍্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হয়? যেখানে ‘৯৭ সালে শাবনূরের পরিবর্তে লাক্স-এর মডেল হয়ে অস্ট্রেলিয়াতে প্রথম যান সেখানে কিভাবে ‘৯৩ সাল কিংবা ‘৯৫ সালের জন্য পুরস্কার পান? আর এই মিথ্যাচার করেই প্রত্যেক মাসে অন্ততপক্ষে একবার হলেও এই নিয়ে পোস্ট দিয়ে বেড়ায় তারা। তাই সকলের উদ্দেশ্যেই বা সঠিকটা জানানোর জন্যই এ পোস্ট।

কথা হচ্ছে প্রত্যেক প্রিয় তারকার অনেক বিষয়ই তো আছে বলার মত বা পোস্ট করার মত। সেখানে মিথ্যাচার করেই কেনো বড় করতে হয় বা হবে? এতে লাভটা কি?

যার কাছে যে সেরা বা প্রিয় তার কাছে সে সেরাই থাকবে বা প্রিয় থাকবে। যতই মিথ্যাচার করে বলা হোক না কেনো সে অস্কার পেয়েছে কিংবা কুইন অফ আরিয়ান খেতাব দিয়েছে! এতে লাভের কিছু হয়?

উল্লেখ্য, বিপাশার এই নিয়ে লাক্স-এর বিজ্ঞাপন ২য়বার করা ছিল। পরবর্তীতে তাকে আবারও দেখা গিয়েছিল শমী কায়সারসহ আরেকটি লাক্স-এর বিজ্ঞাপনে। অন্যদিকে চলচ্চিত্রের মধ্য থেকে মৌসুমীর এই বিজ্ঞাপনের পর পপিকে লাক্স-এর বিজ্ঞাপনের জন্য নির্বাচন করা হয় ৯৮ সালে। যেখানে পপি ছিল লাক্স আয়োজিত প্রথম বিনোদন বিচিত্রার নির্বাচিত সুন্দরী।

- Advertisement -

Read More

Recent