শুক্রবার - মে ২৪ - ২০২৪

আর কোনো কানাডিয়ান গাজা ত্যাগ করেনি

পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেলানি জোলির সংসদীয় সচিব রব ওলিফ্যান্ট ৮ অক্টোবর সকালের দিকে সাংবাদিকদের বলেন মিশর ইসরায়েল ও কাতারের সঙ্গে কাজ করছে কানাডা এবং তাদেরকে দ্রুত সরিয়ে আনতে সম্ভাব্য সব কিছুই করছি আমরা

আর কোনো কানাডিয়ানই অবরুদ্ধ গাজা ভূখন্ড থেকে ৮ নভেম্বর বেরোতে পারেনি বলে গ্লোবাল অ্যাফেয়ার্স কানাডা নিশ্চিত করেছে। প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো ইসরায়েলি সেনাবাহিনী ও হামাসের মধ্যে যুদ্ধে হিউম্যানিটিরিয়ান পজের দাবি জানানোর কয়েক ঘণ্টা পর এই তথ্য জানালো গ্লোবাল অ্যাফেয়ার্স কানাডা।

ট্রুডোর ওপর ওই অঞ্চলে পূর্ণাঙ্গ যুদ্ধবিরতির দাবি তোলার অনুরোধও আবার করা হয়েছে। এই অবস্থায় জাস্টিন ট্রুডো বলেন, বিদেশি নাগরিকদের গাজা থেকে বেরিয়ে আসা এবং মধ্যপ্রাচ্য দুই রাষ্ট্র সমাধানকে সঠিক পথে আনতে হিউম্যানিটিরিয়ান পজ অত্যন্ত জরুরি।

- Advertisement -

গ্লোবাল অ্যাফেয়ার্স কানাডা এক বিবৃতিতে নিশ্চিত করেছে, গাজা ও মিশরের সীমান্ত রাফা ক্রসিং বুধবার বন্ধ করে দেওয়া হয় এবং কোনো বিদেশি নাগরিকই সেটা পাড়ি দিতে পারেনি। মঙ্গলবার সীমান্ত পাড়ি দিয়ে মিশরে ঢুকতে পারা ৭৫ জন কানাডিয়ান, স্থায়ী বাসিন্দা ও তাদের পরিবারের সদস্যদের খাদ্য, বাসস্থান, অন্যান্য মৌলিক চাহিদা ও কন্স্যুলার সেবা দিচ্ছে কায়রোর কানাডিয়ান দূতাবাস।

মার্কিন পররাষ্ট্র দপ্তরের একজন মুখপাত্র এক প্রেস ব্রিফিংয়ে বলেছেন, নিরাপত্তার পরিস্থিতির কারণে রাফাহ সীমান্ত ৮ অক্টোবর বন্ধ ছিল।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী মেলানি জোলির সংসদীয় সচিব রব ওলিফ্যান্ট ৮ অক্টোবর সকালের দিকে সাংবাদিকদের বলেন, মিশর, ইসরায়েল ও কাতারের সঙ্গে কাজ করছে কানাডা এবং তাদেরকে দ্রুত সরিয়ে আনতে সম্ভাব্য সব কিছুই করছি আমরা। তবে কে কখন আসবে সেটা কানাডার নিয়ন্ত্রণে নেই।

গ্লোবাল অ্যাফেয়ার্স পরিস্থিতিকে আবারও অস্থিতিশীল বলে উল্লেখ করে সীমান্তে অনেক বেশি বিলম্ব ও অপ্রত্যাশিত বন্ধের জন্য তৈরি থাকতে কানাডিয়ানদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।

- Advertisement -

Read More

Recent