শনিবার - মার্চ ২ - ২০২৪

অপিয়ড ওভারডোজ কমাবে ন্যালোক্সোন

অপিয়ড সংকটকে সাম্প্রতিক ইতিহাসের অন্যতম স্বাস্থ্য সমস্যা বলে আখ্যায়িত করেছে হেলথ কানাডা মাদকাসক্ত বিষয়ক এক বিশেষজ্ঞ বলেছেন অপিয়ড ওভারডোজে মৃত্যু কমিয়ে আনতে প্রত্যেকেই ভূমিকা রাখতে পারেন এজন্য যেটা প্রয়োজন তা হলো ন্যালোক্সোনের প্রাপ্যতা নিশ্চিত করা

অপিয়ড সংকটকে সাম্প্রতিক ইতিহাসের অন্যতম স্বাস্থ্য সমস্যা বলে আখ্যায়িত করেছে হেলথ কানাডা। মাদকাসক্ত বিষয়ক এক বিশেষজ্ঞ বলেছেন, অপিয়ড ওভারডোজে মৃত্যু কমিয়ে আনতে প্রত্যেকেই ভূমিকা রাখতে পারেন। এজন্য যেটা প্রয়োজন তা হলো ন্যালোক্সোনের প্রাপ্যতা নিশ্চিত করা। জীবন রক্ষাকারী ওষুধটি অপিয়ড ওভারডোজের প্রভাব রদ করতে সক্ষম।

নোভা স্কশিয়া সরকারের অফিস অব মেন্টাল হেলথ অ্যান্ড অ্যাডিকশনের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ডা. স্যাম হিককক্স বলেন, কানাডার সব প্রাপ্ত বয়স্ক এমনকি তরুণদেরও এর প্রাপ্যতা থাকা উচিত। সেই সঙ্গে এ ব্যাপারে সচেতন থাকাও দরকার। এর মাধ্যমে আমরা যদি কিছু জীবন রক্ষা করতে পারি তাহলে তা কেন নয়?

- Advertisement -

অ্যানাফাইল্যাক্টিক অ্যালার্জি রিঅ্যাকশনে ভোগা কারো চিকিৎসায় যেমন এপিপেন ব্যবহার করা হয় ন্যালোক্সোন প্রয়োগকে তার সঙ্গে তুলনা করেন তিনি। হিককক্স বলেন, সাম্প্রতিক বছরগুলোতে কানাডার অবৈধ মাদক বিষাক্ত হয়ে যাওয়ায় চলমান অপিয়ড মহামারির পরিস্থিতি আরও খারাপ হয়েছে। এসব মাদকে কী উপাদান আছে অনেকে তাও জানেন না। সারা দেশকেই এটা বিপর্যস্ত করছে।

২০১৬ সাল থেকে হেলথ কানাডা অপিয়ড সংক্রান্ত ওভারডোজের কারণে ৩৮ হাজার ৫১৪ জনের মৃত্যুর হিসাব করেছে। চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে মার্চ পর্যন্তই মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৯০০ জনের। অর্থাৎ, প্রতিদিন গড়ে মৃত্যু হয়েছে ২১ জনের।

হিককক্স বলেন, ন্যালোক্সোনের সর্বব্যাপী প্রাপ্যতা কেবল জীবন রক্ষায় করবে না। কিছুটা হলেও এ সমস্যার ব্যাপারে আমাদের অনুধাবন করতে সাহায্য করবে।

ন্যালোক্সোন এক ধরনের ওষুধ, যা শরীরের ফেন্টানিল, হেরোইন, মরফিন ও অক্সিকোডোনের মতো মাদকের রিসিপটরকে বন্ধ করে দেয়। কোকেইন, এক্সট্যাসি বা রিটালিনের মতো উত্তেজক পদার্থের কারণে সৃষ্ট ওভারডোজের প্রভাব ওষুধটি উল্টে দিতে পারে না।

- Advertisement -

Read More

Recent