শনিবার - মার্চ ২ - ২০২৪

ক্যান্টালোপ সালমোনেলা সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭

মালিটিতা ও রুডি ব্র্যান্ডের ক্যান্টালোপ থেকে আটটি প্রদেশে এখন পর্যন্ত ১৬৪ জন সালমোনেলায় সংক্রমিত হয়েছে

ক্যান্টালোপ থেকে সালমোনেলার সংক্রমণে আরও একজনের মৃত্যুর কথা জানিয়েছে পাবলিক হেলথ এজেন্সি অব কানাডা। এ নিয়ে এই সংক্রমণে মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল সাতজনে।

সংস্থাটি বলছে, মালিটিতা ও রুডি ব্র্যান্ডের ক্যান্টালোপ থেকে আটটি প্রদেশে এখন পর্যন্ত ১৬৪ জন সালমোনেলায় সংক্রমিত হয়েছে। সবচেয়ে বেশি সংক্রমিত হয়েছে কুইবেকে ১১ জন। এ ছাড়া ব্রিটিশ কলাম্বিয়া, আলবার্টা, অন্টারিও, প্রিন্স এডওয়ার্ড আইল্যান্ড, নিউ ব্রান্সউইক, নোভা স্কশিয়া, নিউফাউন্ডল্যান্ড এবং ল্যাব্রাডোরেও এই সংক্রমণ দেখা দিয়েছে।

- Advertisement -

সংক্রমিত ব্যক্তিদের বড় অংশই পাঁচ বছরের কম বয়সী শিশু, তরুণ এবং ৬৫ বছর ও তার বেশি বয়সীরা। সংক্রমিতদের মধ্যে ৬১ জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

পাবলিক হেলথ এজেন্সি অব কানাডা বলেছে, কারো বাড়িতে যদি তাজা অথবা ফ্রোজেন ক্যান্টালোপ থাকে এবং নিশ্চিতভাবে না জনেন যে সেগুলো কোন ব্র্যান্ডের তাহলে তাদের উচিত সেগুলো ফেলে দেওয়া এবং হাত ভালোভাবে ধুয়ে ফেলা।

কানাডিয়ান ফুড ইন্সপেকশন এজেন্সি ১ নভেম্বর প্রথমবারের মতো এগুলো প্রত্যাহারের নোটিশ দেয়। সংক্রমিত মালিচিতা এবং রুডি ব্র্যান্ডের ক্যান্টালোপগুলো বিক্রি হয়েছিল ১০ অক্টোবর থেকে ২৪ নভেম্বর পর্যন্ত সময়ে। ফ্রুট ট্রে এবং অন্যান্য ফল যেমন হানিডিউ, আনারস এবং তরমুজও প্রত্যাহারের আদেশ দিয়েছে। ক্যান্টালোপের সঙ্গে এগুলোও প্রক্রিয়াকরণ করা হয়।

সালমোনেলায় সংক্রমণের ফলে যেসব উপসর্গ দেখা যায় তার মধ্যে রয়েছে জ¦র, শীত শীত বোধ করা, বমি বমি ভাব, বমি হওয়া, ডায়রিয়া, মাথাব্যথা এবং পেট ব্যথা। সালমোনেলাযুক্ত খাবার খাওয়ার ৭২ ঘণ্টার মধ্যে এসব উপসর্গ সাধারণত দেখা দিতে শুরু করে। সংক্রমিত অধিকাংশ লোক সাধারণত এক সপ্তাহের মধ্যে সুস্থ হয়ে ওঠেন।

পাবলিক হেলথ এজেন্সি বলেছে, সালমোনেলায় আক্রান্ত ব্যক্তিদের থেকে রোগটি অন্যদের মধ্যে ছড়াতে পারে এবং তাদের উচিত অন্যদের জন্য খাবার প্রস্তুত না করা।

- Advertisement -

Read More

Recent