বৃহস্পতিবার - এপ্রিল ১৮ - ২০২৪

ক্ষতিপূরণ পাচ্ছেন টিডি ব্যাংকের ১ লাখের বেশি গ্রাহক

যথেষ্ট অর্থ না থাকার চরম মূল্য কী হতে পারে কানাডার সর্ববৃহৎ ব্যাংক টিডির বিরুদ্ধে করা এক ক্লাস অ্যাকশন মামলা তা সামনে এনেছে

যথেষ্ট অর্থ না থাকার চরম মূল্য কী হতে পারে কানাডার সর্ববৃহৎ ব্যাংক টিডির বিরুদ্ধে করা এক ক্লাস-অ্যাকশন মামলা তা সামনে এনেছে। টিডির বিরুদ্ধে করা মামলার নথিতে প্রধান বাদী টাইলার ডুফল্টের উদাহরণটি তুলে ধরা হয়েছে। পেপল বিল পরিশোধ করতে গিয়ে ৪৫ সেন্ট ঘাটতি পড়ায় তার কাছ থেকে ৯৬ ডলার মাশুল আদায় করা হয়।

১ কোটি ৫৯ লাখ ডলারে মামলাটি নিষ্পত্তির বিষয়টি অন্টারিও সুপিরিয়র কোর্ট এ সপ্তাহে অনুমোদন করেছে। ৪৮ ডলারের নন-সাফিশিয়েন্ট ফান্ড (এনএসএফ) ফির ক্ষেত্রে গ্রাহকদের কাছ থেকে দুইবার মাশুল আদায় করার বিষয়টি ব্যাংক কর্তৃপক্ষ সঠিকভাবে ঘোষণা করেছিল কিনা সেটার ওপর বেশি গুরুত্ব দেওয়া হয়েছে এক্ষেত্রে।

- Advertisement -

এমন এক সময় মামলা নিষ্পত্তির বিষয়টি এল যখন এ ধরনের ফির ওপর মাশুল আরোপের যৌক্তিকতা নিয়ে কাটাছেড়া চলছে। নিয়ন্ত্রক সংস্থাগুলোর চাপের মুখে যুক্তরাষ্ট্রের অনেক ব্যাংক এরই মধ্যে এ ধরনের মাশুল বাতিল করেছে। কানাডাতেও বিষয়টি নিয়ে কাজ করা ব্যক্তিরা এই মাশুল হ্রাস বা পুরোপুরি বাতিলের দাবি জানাচ্ছেন।

দারিদ্রবিরোধী অ্যাডভোকেসি গ্রুপ অ্যাকর্নের নেতা ডোনা বর্ডেন বলেন, এ ধরনের বড় অঙ্কের মাশুল আদায় করা ব্যাংকগুলোর আরেকটি নিবর্তনমূলক চর্চা।

স্বয়ংক্রিয় বিল পরিশোধের মতো পূর্বানুমোদিত ডেবিট প্রক্রিয়ার ক্ষেত্রে অ্যাকাউন্টে পর্যাপ্ত অর্থ না থাকলে কানাডার বড় ব্যাংকগুলো ৪৫ থেকে ৫০ ডলারের মধ্যে মাশুল আদায় করে। লেনদেন বাতিল হলে ম্যার্চেন্টকে ৩০ দিনের মধ্যে দ্বিতীয়বার সুযোগ দেওয়া হয়।

টিডি এই নিষ্পত্তিতে কোনো দায় স্বীকার করেনি। তবে তাদের ঘোষণা সংশোধন ও কোনো গ্রাহক প্রথমবারের মতো বিষয়টি উত্থাপন করলে ফির পুরোটা ফেরত দেওয়ার সুযোগ দিয়ে শর্তের কিছু অংশ সংশোধনে রাজি হয়েছে।

মীমাংসার আওতায় ২০১৯ সালের ২ ফেব্রুয়ারি থেকে ২০২৩ সালের ২৭ নভেম্বর পর্যন্ত সময়ে দুইবার মাশুল আরোপ করা টিডির ১ লাখ ৫ হাজার গ্রাহককে ৮৮ ডলার করে ক্ষতিপূরণ দেবে।

- Advertisement -

Read More

Recent