বৃহস্পতিবার - এপ্রিল ১৮ - ২০২৪

বিচারক নির্বাচনে কমিটি গঠন নিয়ে ডগ ফোর্ডের সাফাই

প্রাদেশিক বিচারক নির্বাচনে গঠিত কমিটিতে সাবেক দুজন কর্মকতার নিয়োগের পক্ষে নিজের অবস্থান তুলে ধরেছেন অন্টারিওর প্রিমিয়ার ডগ ফোর্ড

প্রাদেশিক বিচারক নির্বাচনে গঠিত কমিটিতে সাবেক দুজন কর্মকতার নিয়োগের পক্ষে নিজের অবস্থান তুলে ধরেছেন অন্টারিওর প্রিমিয়ার ডগ ফোর্ড। বলেছেন, ওই ভূমিকায় লিবারেল বা এনডিপির কাউকে দেখতে চান না তিনি।

কমিটিতে ফোর্ডের সাবেক ডেপুটি চিফ অব স্টাফ ম্যাথিউ বন্ডি এবং ফোর্ডের সাবেক অংশীজন সম্পর্ক বিষয়ক সাবেক পরিচালককে ব্রক ভ্যান্ড্রিককে জুডিশিয়াল অ্যাপয়েন্টমেন্ট অ্যাডভাইজরি কমিটিতে নিয়োগের ব্যাপারে প্রথম প্রতিবেদন প্রকাশ করে টরন্টো স্টার। বন্ডিকে কমিটির চেয়ার হিসেবে দেওয়া হয়েছে।

- Advertisement -

অ্যাটর্নি জেনারেল ডগ ডাউনি এই নিয়োগ দিয়েছেন। ফোর্ড ২৩ ফেব্রুয়ারি এ ব্যাপারে বলেন, তার প্রোগ্রেসিভ কনজার্ভেটিক সরকার নির্বাচিত হয়েছে সমমনা ব্যক্তিদের নিয়োগের জন্য। আমি কোনো এনডিপি বা লিবারেলকে নিয়োগ দিতে যাচ্ছি না।

ফোর্ড বলেন, বিচারক ও বিচারপতিরা অপরাধীদের প্রতি অনেক বেশি সদয় এবং লোকজনকে প্রায় সময়ই জামিনে বেরিয়ে আসার সুযোগ করে দিচ্ছেন। সুতরাং, বিচার বিভাগে আমি আরও বেশি লোক নিয়োগ দিতে চাই, যারা লোকজনকে জেলে রাখবেন। কেউ যদি আপনার দরজার সামনে এসে দাঁড়ায়, বন্দুকটি আপনির মাথার দিকে তার করে এবং পরেরদিনই ওই অপরাধীকে হঠাৎ রাস্তায় দেখেন তখন আপনার কেমন লাগবে? এটা গ্রহণযোগ্য নয়। সুতরাং, প্রতিটি নিয়োগের ক্ষেত্রে সেই ধরনের শক্ত বিচারককে চান, যিনি লোকজনকে জেলে রাখবে। সেটাই আমি করতে যাচ্ছি। এটা গণতন্ত্রের অংশ। সেজন্যই একটি দলকে আপনি ভোট দিয়েছেন।

তিনজন বিচারক, তিনজন আইনজীবী ও সাতজন সাধারণ মানুষকে নিয়ে কমিটি গঠন করা হয়েছে। তারা আবেদনগুলো পর্যালোচনা এবং সম্ভাব্য অন্টারিও কোর্ট বিচারকদের সাক্ষাৎকার গ্রহণ করবেন। এরপর তারা সুপারিশসহ একটি তালিকা অ্যাটর্নি জেনারেলের কাছে পাঠাবেন। ওই তালিকা থেকে তিনি কাউকে বিচারক নিয়োগ দেবেন।

অ্যাডভাইজরি কমিটির নিয়োগ বাতিলের জন্য ফোর্ডের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন লিবারেল নেতা বনি ক্রম্বি। এক বিবৃতিতে তিনি লিখেছেন, প্রিমিয়ার ফোর্ড যা বলতে চাইছেন সেটা আপনাদের সামনে খোলাসা করার সুযোগ দিন। তিনি ইচ্ছাকৃতভাবে নির্দলীয় একটি কমিটিতে সাবেক কনজার্ভেটিভ কর্মীদের নিয়োগ দিয়েছেন। কাক্সিক্ষত দলীয় ফলাফল পেতে তারা বিচারক হিসেবে মনোনীত ব্যক্তিদের খুঁজে নিতে সাহায্য করবেন। এটা তারই বক্তব্য, যা পুরোপুরি অগ্রহণযোগ্য।

এনডিপির অ্যাটর্নি জেনারেল ক্রিটিক ক্রিস্টিন অং-ট্যাম এক লিখিত বিবৃতিতে বলেছেন, বিচারক নিয়োগে নিরপেক্ষা পদ্ধতির প্রতি এই নিয়োগ গুরুতর উদ্বেগ সৃষ্টি করবে। এই সরকারের অধীনে আমরা আমাদের আদালত ব্যবস্থায় বিশৃঙ্খলা বাড়তে দেখছি।

This article was written by Rezaul Haque as part of the LJI

- Advertisement -

Read More

Recent