শুক্রবার - মে ২৪ - ২০২৪

অ্যারাইভক্যান ইস্যুতে বেসরকারি ব্যক্তিকে সতর্ক করল হাউস অব কমন্স

১০০ বছরেরও বেশি সময়ের মধ্যে এই প্রথম কোনো বেসরকারি ব্যক্তিকে ১৭ এপ্রিল সতর্ক করেছে হাউস অব কমন্স অ্যারাইভক্যান নিয়ে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার এটি সর্বশেষ নজির

১০০ বছরেরও বেশি সময়ের মধ্যে এই প্রথম কোনো বেসরকারি ব্যক্তিকে ১৭ এপ্রিল সতর্ক করেছে হাউস অব কমন্স। অ্যারাইভক্যান নিয়ে বিরূপ প্রতিক্রিয়ার এটি সর্বশেষ নজির। কোভিড আমলের অ্যাপটি ব্যবস্থাপনায় সরকারের ব্যর্থতা নিয়ে লিবারেল সরকারের দিকে আঙ্গুল তুলেছেন এমপিরা।

কমিটির শুনানিতে নির্দিষ্ট প্রশ্নের উত্তর দিতে অস্বীকৃতি জানানোয় জিসি স্ট্র্যাটেজিসের অংশীদার ক্রিস্টিয়ান ফার্থকে হাউসের বারে হাজির হতে নির্দেশ দেওয়া হয়। আরসিএমপি তার বাড়িতে তল্লাশি পরোয়ানা বাস্তবায়ন করেছে বলে ফার্থ দাবি করার একদিন পর এ ঘটনা ঘটল।

- Advertisement -

আরসিএমপির একজন মুখপাত্র বলেছেন, তল্লাশিটি অ্যারাইভক্যান তদন্ত সংশ্লিষ্ট ছিল না। এর বেশি তথ্য তিনি জানাননি।

ফার্থ বলেন, আরেকটি তদন্ত সংশ্লিষ্ট ইলেক্ট্রনিক সামগ্রী খুঁজছিল আরসিএমপি।

প্রশ্নোত্তর পর্বের কিছুক্ষণ পরই আইনজীবীকে সঙ্গে নিয়ে ফার্থ হাউস অব কমন্সে হাজির হলে কানাঘুঁষা শুরু হয়। তাকে প্রকাশ্যে তিরস্কার করার আগেই প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো, বিরোধী দলীয় নেতা পিয়েরে পয়লিয়েভর এবং বেশ কয়েকজন কেবিনেট মন্ত্রী হাউস ছেড়ে যান।

স্পিকার ক্রেগ ফার্গাস সরাসরি ফার্থকে বলেন, হাউস অব কমন্সের পক্ষ থেকে আমি আপনাকে সতর্ক করছি। ফার্থ এ সময় সোজাসুজিভাবে দাঁড়িয়েছিলেন এবং এদিক-ওদিক তাকাননি।

এর পাশাপাশি ফার্থকে এমপিদের করা প্রশ্নের উত্তর দেওয়ারও নির্দেশ দেওয়া হয়। এমপিরা বলেন, গত মাসে হাউস কমিটির বৈঠকে তিনি প্রশ্নের উত্তর দিতে অস্বীকৃতি জানান। ফার্গাস সতর্ক করে দিয়ে বলেন, আমি আপনাকে স্মরণ করিয়ে দিচ্ছি যে, আপনাকে করা সব প্রশ্নের উত্তর অবশ্যই দিতে হবে।

- Advertisement -

Read More

Recent