শুক্রবার - জুলাই ১৯ - ২০২৪

কানাডায় মুসলিম ফিউনারেল সার্ভিস

এ দেশে প্রথমত কবর কিনে দাফন করা বেশ ব্যয় সাপেক্ষ জায়গা ভেদে ৫ থেকে ৭ হাজার ডলার

এ দেশে প্রথমত কবর কিনে দাফন করা বেশ ব্যয় সাপেক্ষ, জায়গা ভেদে ৫ থেকে ৭ হাজার ডলার। কোথাও কোথাও এর থেকে অনেক বেশি। এবার ধরুন, পরিবারে যদি দুজনের জন্য দুটি কবরের জায়গা কিনেন, খরচ করছেন ৬ হাজারেরও বেশি অর্থ। তার সাথে মৃত্যুর সময় এই কেনা কবর কেটে তৈরি করার জন্য খরচ যোগ করতে হবে $১২০০ মত সাথে মসজিদের ১০০০ ডলারের আলাদা সার্ভিস চার্জ থাকবে। তার মানে কবরের জায়গা কিনেই আপনার খরচ শেষ হয়ে যাচ্ছেনা।

কারো মৃত্যুকালীন সময়ে তার পরিবার থাকেন এক ধরনের শোকে ডুবে তার ভেতর বিদেশ বিভুঁইয়ে সবার অনেক পরিচিত মানুষ থাকে না যে তারা পরিবারের পাশে এসে সাহায্যের হাত বাড়াবেন। যদিও বা দু পাঁচজন থাকেন, তারাও থাকেন দৈনন্দিন কাজে ব্যসতো। তাই চট করে তাদের সাহায্য পাওয়া সম্ভব নাও হতে পারে। আর “বাংলাদেশ মুসলিম ফিউনারেল সার্ভিসেস” এর সদস্য হলে মাত্র ১৭৫ ডলারের নিচে এককালীন সদস্য ফি দিয়ে পুরো পরিবারের দাফনের কার্যের আর্থিক দায়িত্ব তুলে দিচ্ছেন অন্য সদস্যদের কাছে, যাতে তারা আপনার মৃত্যুর সময় আপনার পরিবারের আর্থিক প্রয়োজনে এগিয়ে আসতে পারেন এই প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে।

- Advertisement -

অন্য সদস্যের মৃত্যুতে তার দাফন প্রক্রিয়া বা জানাজায় আপনি শারীরিকভাবে উপস্থিত হতে না পারলেও তার দাফন প্রক্রিয়া খরচে সামান্য ৫-৬ ডলার অর্থ দিয়ে আপনিও আদায় করে নিতে পারেন আপনার “সাদাকা”। আর আমরা জানি “সাদাকা” ইসলামের দৃষ্টিতে কত গুরুত্বপূর্ণ বিষয় যা এই প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে সদস্য হয়ে আপনিও আদায় করে নিতে পারেন।

তাছাড়া, ঐ মুহূর্তে পরিবারের পাশে থেকে BDMFS এর ভলানটিয়াররা মসজিদের সাথে যোগাযোগ করে পুরো প্রক্রিয়া আপনার পরিবারের জন্য সহজ করে দিবেন, এটাও কি আপনার পরিবারের জন্য একটি বড় পাওয়া নয়?

আশা করি উপরের তুলনামূলক তথ্যটি আপনাকে “বাংলাদেশ মুসলিম ফিউনারেল সার্ভিসেস” এর সদস্য হতে সাহায্য করবে।

আমাদের ওয়েব এ্যাড্রেস- www.bdmfs.org

- Advertisement -

Read More

Recent