শনিবার - মার্চ ২ - ২০২৪

ইহুদি-মুসলিম যৌথ মালিকানার হাইফা রুম

টরন্টোর হাইফা রুমের পেছনের ব্যক্তিরা এখন ডাউনটাউন ভ্যানকুভারে নতুন ভেন্যু বার হাইফা খুলেছেন ইসরায়েল হামাস যুদ্ধ শুরু হওয়ার মাত্র কয়েক সপ্তাহ আগে ২৪ নভেম্বর এটি চালু করা হয়

ভ্যানকুভার এবং টরন্টোর রেস্তোরাঁর পেছনের সহযোগীরা ফিলিস্তিনি, ইহুদি এবং তাদের রয়েছে ইসরায়েলি শিকড়। সব সময় যে তারা একমত হতে পারেন না এটা তারা স্বীকার করেছেন।

মালিকদের একজন ফাদি হাকিম বলেন, কোনো ফালাফেলের ৩৮টি স্বাদের কথা কল্পনা করুন এবং শেষ পর্যন্ত তা দারুণ।

- Advertisement -

টরন্টোর হাইফা রুমের পেছনের ব্যক্তিরা এখন ডাউনটাউন ভ্যানকুভারে নতুন ভেন্যু বার হাইফা খুলেছেন। ইসরায়েল-হামাস যুদ্ধ শুরু হওয়ার মাত্র কয়েক সপ্তাহ আগে ২৪ নভেম্বর এটি চালু করা হয়।

ফাদি হাকিম বলেন, তিনি, ওয়াসিম দাবদুব, মার্ক কুপফার্ট এবং জোসেফ ইস্টউড সব সময়ই মধ্যপ্রাচ্যীয় একটি রেস্তোরাঁ খোলার ব্যাপারে আলাপ করতেন। কিন্তু এটা যে ইসরায়েল-ফিলিস্তিন সহযোগিতার কোনো বিষয় তেমনটা তারা কখনো ভাবেন নি।

তিনি বলেন, দুই রেস্তোরাঁর মেন্যু ও উপাদান কোথা থেকে আমরা এসেছি এবং কীভাবে বড় হয়েছি এবং কীভাবে আমরা খাই তার প্রতিনিধিত্বকারী ভালোবাসার পত্র। আমাদের পক্ষ থেকে একটি জায়গা পেয়েই আমরা খুশি ছিলাম, যেখানে বসে আমরা সবসময় খেতে পারব। যেখানে বসে আমরা আমাদের বাবা-মায়েদের এবং সত্যিকারের ভালো মধ্যপ্রাচ্যের খাবার খেতে পারব।

হাকিমের ফিলিস্তিনি বাবার জন্ম উপকূলীয় শহর হাইফাতে। দাবদুবের বাবা ফিলিস্তিনি। কুফার্ট মন্ট্রিয়লের একজন ইহুদি এবং ইস্টউডের জন্ম ইসরায়েলে। তাদের নিয়োগ দেওয়া প্রধান নির্বাহী জেসন হেমির তেল আবিবের রেস্তোরাঁয় কাজ করার অভিজ্ঞতা রয়েছে।
বার হাইফার দলের পরিবারের সদস্যরা যুদ্ধকবলিত এলাকাটিতে বসবাস করছেন। হাকিম বলেন, সবচেয়ে খারাপ সময়ের মধ্য দিয়ে যেতে হচ্ছে তাদের।

ইনস্টাগ্রামে দেওয়া এক বিবৃতিতে তারা বলেছেন, হাইফা রুমের মালিকানায় ফিলিস্তিনি এবং ইসরায়েলি উভয়েই রয়েছে এবং আমাদের পরিবারের অনেক সদস্য ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনে বসবাস করছেন। আমাদের প্রিয় মাতৃভূমির নিরপরাধ বেসামরিক ব্যক্তিদের প্রতি আমাদের সমবেদনা থাকছে। আমাদের হৃদয় ভেঙে গেছে।

তবে ৭ অক্টোবরের হামলা সম্পর্কে জানতে চাইলে তারা এ ব্যাপারে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

- Advertisement -

Read More

Recent